আমার জীবনের ২০ লাইনের কথাগুলো সম্ভব হলে ফেসবুকের প্রিয় বন্ধুরা পড়বেন,,,, আব্দুর রব প্রধান

0
1838

খালিহাতে শুরু করা সীমাহীন কষ্ট আর শ্রম দিয়ে
আমার নিজ হাতে তিল তিল করে গড়া এই কলেজ, চতরা মাল্টিমিডিয়া ক্যাডেট স্কুল, ভোকেশনাল শাখা, জামে মসজিদ, বাগান, সৌন্দর্যমমন্ডিত ক্যাম্পাস, টাওয়ারসহ সব কিছুর প্রতি ইঞ্চিতে আমি ও পরিবার শ্রম দেয়,,,,,,
হোক সেটা টয়লেট পরিস্কার করা, ঝাড়ু দেয়া, রাত্রিজেগে নিরাপত্তার জন্য প্রতিটি রুম আশপাশ চেককরা। যে যুদ্ধ রোজ ফজর পড়ে শুরু হয়,,, রাত ১২.০০ টা পর্যন্ত চলে।
কাছেই চতরা বাজার হলেও যেতে পারিনা জরুরী প্রয়োজন ছাড়া।
ছেড়ে দিয়েছি সব,,,,
নিজের করে জগৎ এখানেই গড়ার চেষ্টা/যুদ্ধ করে যাচ্ছি। জীবনটা আমার অনেক অনেক অনেক কষ্টের হলেও এগুলো নিয়েই বেঁচে আছি।
অনেক প্রচেষ্টা, স্বপ্ন সফলও হয়েছে, আবার কিছুগুলো সাফল্যের পথে।এই পরিবেশটা একসময় বিশ্ব মানের করার চেষ্টায় নিরলস কাজ আর কাজ করে যাচ্ছি,,, সারাজীবনই সাথে পেয়েছি অনেক ছাত্র-ছাত্রী যারা আমার যুদ্ধের সবথেকে বড় সঙ্গী, এখন সঙ্গী বা প্রেরণা হিসেবে পাই দেশ-বিদেশের ফেসবুকের অনেক অান্তরিক অনেক বন্ধুুকে।
মাঝেমধ্যে অবাক হয়ে যাই, মানুষের চোখে এত পানি থাকতে পারে? এত কষ্ট মানুষ হিসেবে কি করে সহ্য করে বেঁচে আছি!!!
সবাই প্রাণ খুলে সারা জীবনে দুঃখ, কষ্ট, সীমাহীন যন্ত্রণা, প্রতি পদে বাঁধা, অসুস্থতাকে সাথে নিয়ে,,,,, কখনো সুখি হবো এই প্রত্যাশায় এগিয়ে চলা দুঃখী হতভাগা এই মানুষটার জন্য দোয়া করবেন।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here

2 × one =