মামলা প্রত্যাহার ইউএনও’র বিরুদ্ধে

0
1964

আমাদের পীরগঞ্জ ডেক্সঃ বরগুনার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) গাজী তারিক সালমনের বিরুদ্ধে দায়ের করা মানহানি মামলা প্রত্যাহার করা হয়েছে। এছাড়া ৬ পুলিশ সদস্যকে ক্লোজ করা হয়েছে।
গতকাল মামলা প্রত্যাহারের জন্য বাদী বরিশাল জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি ওবায়েদ উল্লাহ সাজু আবেদন করেন। শুনানি শেষে বরিশালের অতিরিক্ত মুখ্য বিচারিক হাকিম অমিত কুমার দে প্রত্যাহারেরআবেদন মঞ্জুর করে মামলা খারিজের আদেশ দেন। এ বিষয়ে মামলার বাদী ওবায়েদ উল্লাহ সাজু বলেন, শিশুর আঁকা বঙ্গবন্ধুর ছবি ছাপানোর বিষয়টি নিয়ে একটা ভুল বোঝাবুঝি হয়েছিল। পরে মূল ছবি দেখে ভুলের অবসান হয়েছে। তাই মামলা প্রত্যাহার করা হয়েছে।
এর আগে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা গাজী তারিক সালমনকে নাজেহালের দিন বরিশালের আদালতে দায়িত্ব পালন করা ছয় পুলিশ সদস্যকে প্রত্যাহার করা হয়। এ ছাড়া জেলা আওয়ামী লীগের ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক ওবায়েদ উল্লাহ সাজুকে দল থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে।
৬ পুলিশ ক্লোজড
ইউএনও গাজী তারিক সালমনের হাতে হ্যান্ডকাপ পরানোসহ তাকে অবমাননার অভিযোগে বরিশাল আদালতের গারদখানার দায়িত্বে থাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের উপপরিদর্শকসহ ৬ পুলিশ সদস্যকে ক্লোজড করা হয়েছে।
শনিবার রাত ২টার দিকে মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার এসএম রুহুল আমিনের নির্দেশে তাদের ক্লোজড করে পুলিশ লাইন্সে সংযুক্ত করা হয়।ক্লোজড হওয়া পুলিশ সদস্যরা হলেন- আদালতে মেট্রোপলিটন গারদের ইনচার্জ উপপরিদর্শক নৃপেন দাস, এটিএসআই শচীন মন্ডল ও মাহাবুল, কনস্টেবল জাহাঙ্গীর হোসেন, হানিফ ও সুখেন।
বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের মুখপাত্র সহকারী পুলিশ কমিশনার মো. শাখাওয়াত হোসেন।
তবে ক্লোজড করার কারণ স্পষ্ট না করে শুধু প্রশাসনিক কারণে তাদের ক্লোজড করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন তিনি। এদিকে ইউএনওকে কারাগারে প্রেরণের বিষয়ে পুলিশের কোনো বাড়াবাড়ি রয়েছে কি না সে বিষয়টি তদন্ত করতে গতকাল পুলিশের একটি টিম বরিশালে আসে। পুলিশ হেডকোয়ার্টার্সের নির্দেশে ওই টিমটি শনিবার সন্ধ্যায় বরিশালের উদ্দেশ্যে রওনা হয়ে গতকাল সকালে বরিশালে পৌঁছে

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here

eight + 18 =